ঢাকা, ০৩ আগস্ট মঙ্গলবার, ২০২১ || ১৮ শ্রাবণ ১৪২৮
good-food
৬১

কখন বুঝবেন করোনার ঝুঁকিতে আছেন

লাইফ টিভি 24

প্রকাশিত: ২৩:৪৭ ১৭ জুলাই ২০২১  

বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ জটিল আকার ধারণ করেছে। বাংলাদেশর পরিস্থিতিও ভালো নয়। গত বছরের মার্চে প্রথম করোনা শনাক্তের পর আজ মঙ্গলবার করোনা আক্রান্ত হয়ে এক দিনে সর্বোচ্চ ৬৬ জনের মৃত্যুর তথ্য জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। এ অবস্থায় অনেকেই শঙ্কায় রয়েছেন করোনা নিয়ে। যেকোনো ধরনের অসুস্থতা বুক কাঁপিয়ে দিচ্ছে। কোন লক্ষণকে গুরুত্বের সঙ্গে নিতে হবে, কোনটি দেখা দিলে তেমন শঙ্কার কিছু নেই, তা জানাটা তাই জরুরি হয়ে পড়েছে।

 

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা করোনার বিভিন্ন মাত্রার উপসর্গ সম্পর্কে অবহিত করতে নিজেদের ফেসবুক পেজে পোস্ট দিয়েছে অনেক আগেই। এতে করোনার গুরুতর, মাঝারি ও লঘু সংক্রমণের কারণে শরীরে সৃষ্ট লক্ষণগুলো তুলে ধরা হয়েছে। বাংলাদেশের বর্তমান পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্য সতর্কতা মেনে চলার প্রয়োজনেই এই লক্ষণগুলো সম্পর্কে জানাটা বিশেষভাবে জরুরি।

 

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা করোনাভাইরাসের লক্ষণগুলোকে তিন ভাগে ভাগ করেছে—মারাত্মক, সাধারণ ও কম ঝুঁকিপূর্ণ লক্ষণ। গুরুতর সংক্রমণের ক্ষেত্রে যে লক্ষণগুলো দেখা যায়—

  • শ্বাস নিতে কষ্ট হওয়া
  • কথা বলা ও চলাচলে কষ্ট
  • সিদ্ধান্ত নিতে সমস্যায় পড়া
  • বুকে ব্যাথা অনুভব করা

 

গুরুতর সংক্রমণের ক্ষেত্রে দ্রুত হাসপাতাল থেকে স্বাস্থ্যসেবা নেওয়ার পরামর্শ দিচ্ছে সংস্থাটি। করোনার গুরুতর সংক্রমণ তুলনামূলক কম দেখা যায়। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই মাঝারি সংক্রমণ দেখা যায়। এ ক্ষেত্রে যে লক্ষণগুলো দৃষ্টিগ্রাহ্য হয়—

  • জ্বর, কাশি ও ক্লান্তিভাব থাকা
  • স্বাদ ও ঘ্রাণ হারিয়ে ফেলা

 

এই লক্ষণগুলো ধীরে ধীরে মারাত্মক অসুস্থ করে তুলতে পারে। তাই এমন লক্ষণ দেখা দিলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

লঘু বা কম ঝুঁকিপূর্ণ লক্ষণের মধ্যে রয়েছে—

  • ঘাড় ব্যাথা, মাথা ব্যাথা ও বুকে হালকা ব্যাথা
  • ডায়রিয়া, ত্বকে র‍্যাশ ওঠে বা ত্বকের রং নষ্ট হওয়া
  • চোখ লাল হয়ে যাওয়া

 

এসব লক্ষণ দেখা দিলে সতর্ক থাকতে হবে। কারণ, একজনের মধ্যে করোনার লঘু লক্ষণ দেখা দিলেও তা অন্যকে আক্রান্ত করলে গুরুতর অসুস্থ করে ফেলতে পারে। তাই এ সময় জনসমাগমস্থল এড়িয়ে চলা উচিত। সবচেয়ে বড় বিষয় হলো করোনা সংক্রমণের এই সময়ে সব সময়ই সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন জরুরি। এ ক্ষেত্রে মাস্ক পরা, শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখাসহ স্বাস্থ্য সতর্কতার নীতিগুলো মেনে চলা উচিত।

করোনাভাইরাস বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর