ঢাকা, ২৪ নভেম্বর মঙ্গলবার, ২০২০ || ১০ অগ্রাহায়ণ ১৪২৭
good-food
৪৫

মুজিববর্ষের ১ কোটিসহ সাড়ে ৮ কোটি গাছ লাগানো হয়েছে

লাইফ টিভি 24

প্রকাশিত: ২১:৫০ ১২ নভেম্বর ২০২০  

পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন বলেছেন, মুজিববর্ষের কর্মসূচিসহ গত এক বছরে দেশে মোট ৮ কোটি ৬১ লাখ ৬২ হাজার গাছ লাগানো হয়েছে। এসব গাছ জলবায়ু পরিবর্তন রোধ, কার্বন নিঃসরণ প্রশমন, অক্সিজেনের মাত্রা বাড়ানো, খাদ্য-পুষ্টিসহ পরিবেশ ও প্রতিবেশ উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। 

 

সারাদেশে বিনামূল্যে ১ কোটি বৃক্ষের চারা বিতরণ এবং রোপণ কর্মসূচির সমাপ্তি উপলক্ষে বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) তথ্য অধিদপ্তরে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী স্মরণীয় করে রাখতে এই উদ্যোগ নেয়া হয়।

 

শাহাব উদ্দিন বলেন, মুজিববর্ষের ১ কোটি চারা রোপণ করা হয়েছে। পাশাপাশি চলতি বছর বন অধিদপ্তর ১৪,৬৬৯ হেক্টর ব্লক বাগান, ১৬১০ কিলোমিটার স্ট্রিপ বাগান এবং উপকূলীয় এলাকায় ১০,০৭৭ হেক্টর ম্যানগ্রোভ বাগান তৈরি করেছে। এগুলোতে ৭ কোটি ৪৬ লাখ ৮২ হাজার চারা রোপণ করা হয়েছে। এছাড়া জলবায়ু ট্রাস্ট ফান্ডের অর্থায়নে সাংসদদের মাধ্যমে ১৪ লাখ ৮০ হাজার বিভিন্ন প্রজাতির বনজ, ফলদ ও ঔষধি বৃক্ষের চারা বিতরণ করা হয়েছে। 

 

তিনি জানান, প্রত্যেকটিতে ২০,৩২৫টি করে ৪৯২টি উপজেলায় মোট ১ কোটি বিভিন্ন প্রজাতির বনজ, ফলদ, ঔষধি ও শোভাবর্ধনকারী গাছের চারা বন বিভাগের নার্সারিগুলোতে প্রস্তুত করা হয়। যে উপজেলায় বন বিভাগের নার্সারি নেই, সেক্ষেত্রে পার্শ্ববর্তী উপজেলায় এই চারা উত্তোলন করা হয়।

 

মন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে সরকারের নিরলস প্রচেষ্টায় বৃক্ষরোপণ অভিযান নতুন মাত্রা লাভ করেছে। বন বিভাগ রোপিত চারাসমূহ বৃক্ষে পরিণত হলে আগামী ৫ বছর জিআইএস প্রযুক্তি ব্যবহার করে উপজেলাভিত্তিক বৃক্ষ আচ্ছাদন পরিমাপের পরিকল্পনা রয়েছে। 

 

শাহাব উদ্দিন বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের এই উদ্যোগ স্মারক হয়ে থাকবে। বৃক্ষ, পরিবেশ ও প্রতিবেশ নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ আগ্রহ রয়েছে। করোনা মহামারির মধ্যেও নিজ হাতে বৃক্ষের চারা রোপণ করে উৎসাহ দেয়ায় তার প্রতি আমাদের সীমাহীন কৃতজ্ঞতা এবং আন্তরিক ধন্যবাদ রইল। 

 

তিনি বলেন, জাতির পিতার সুযোগ্য উত্তরাধিকার শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ সরকার কাজ করে যাচ্ছে। পরিবেশ ও জীববৈচিত্র্য সংরক্ষণ এখন সবার সাংবিধানিক দায়িত্ব। সম্মিলিতভাবে প্রকৃতি সংরক্ষণের লক্ষ্যে কাজ করলেই দেশের পরিবেশ উন্নত হবেই।

 

এসময়ে পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের সচিব জিয়াউল হাসান, প্রধান তথ্য অফিসার সুরথ কুমার সরকার, অতিরিক্ত সচিব (প্রশাসন) ড. মো: বিল্লাল হোসেন এবং প্রধান বন সংরক্ষক (চলতি দায়িত্ব) মো. আমীর হোসাইন চৌধুরী উপস্থিত ছিলেন।

গাছের জন্য ১ মিনিট বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর