ঢাকা, ২১ এপ্রিল রোববার, ২০১৯ || ৮ বৈশাখ ১৪২৬
LifeTv24 :: লাইফ টিভি 24

শিগগির দেশে যক্ষ্মা রোগের ওষুধ তৈরি হবে

প্রকাশিত: ২০:০৮ ১২ এপ্রিল ২০১৯  


স্বাস্থ্য পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, বাংলাদেশে শিগগির যক্ষ্মা রোগের ওষুধ তৈরি করা হবে।

সরকারি ওষুধ প্রস্তুতকারী সংস্থা অ্যাসেনশিয়াল ড্রাগস কোম্পানি লিমিটেডে (ইডিসিএল) একটি নতুন প্ল্যান্ট তৈরি করা হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, সেখানে ওষুধ তৈরি হবে। ওষুধের অভাব এখন নেই। তখন সক্ষমতা আরো বাড়বে। ৭০০ কোটি টাকা খরচ হবে। এটা শুরু হয়ে গেছে। সেখানে টিবি ড্রাগ (যক্ষ্মার ওষুধ) তৈরির পরিকল্পনা আমরা হাতে নিয়েছি।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী সম্প্রতি স্বাস্থ্য পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে বিশ্ব স্বাস্থ্য দিবস-২০১৯ উদযাপন উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে কথা বলেন।

বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশেও গেল এপ্রিল বিশ্ব স্বাস্থ্য দিবস পালন করা হয়। এবারের প্রতিপাদ্য বিষয় ছিলসমতা সংহতি নির্ভর সার্বজনীন প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবা

জাহিদ মালেক বলেন, দেশে অসংক্রামক রোগ দিন দিন বাড়ছে। বর্তমানে এমন রোগী রয়েছেন ৬৫ শতাংশ। একইসঙ্গে সরকার স্বাস্থ্য খাতে সমতা আনতে কাজ করে যাচ্ছে। কেউ স্বাস্থ্যসেবার বাইরে থাকবে না।

সরকারি হাসপাতালগুলোর আগুন নেভানোর ব্যবস্থা সম্পর্কে কী পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে- জানতে চাইলে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, আমরা সব হাসপাতালে ইতোমধ্যে একটা নির্দেশনা দিয়ে দিয়েছি। যদি অগ্নি দুর্ঘটনা ঘটে সেটাকে মোকাবেলা করার জন্য কী পদক্ষেপ নেবেন তা জানিয়েছি। এছাড়া আমরা ইমিডিয়েট অগ্নি মহড়া যেসব যন্ত্রপাতি রয়েছে, সেগুলো পরীক্ষার জন্য বলেছি। যেগুলো সচল নয়, সেগুলো সচল করার ব্যবস্থা নিতে বলেছি।

সরকারি হাসপাতালগুলোতে প্রাথমিক স্বাস্থ্য সেবা কর্ণার খোলা হবে জানিয়ে জাহিদ মালেক বলেন, আমরা হাসপাতালগুলোতে একটা ছোট্ট কর্ণার করার পরিকল্পনা করছি। যেখান থেকে প্রাইমারি হেলথ কেয়ার দেয়া হবে। আমরা বিভিন্ন কর্ণার তৈরি করেছি। মা শিশুদের জন্য, অটিস্টিক শিশুদের জন্য প্রাইমারি হেলথ কেয়ারের একটি ডেডিকেটেড কর্ণার করতে চাই। যাতে ছোট অসুখ-বিসুখের জন্য ওখানে তারা প্রাইমারি হেলথ কেয়ারটা পান। এর মাধ্যমেই আমরা সমতা সৃষ্টি করতে চাচ্ছি।

সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব আসাদুল ইসলাম, অতিরিক্ত সচিব হাবিবুর রহমান বাবলু কুমার সাহা উপস্থিত ছিলেন।


এই বিভাগের আরো খবর