ঢাকা, ০৩ আগস্ট মঙ্গলবার, ২০২১ || ১৮ শ্রাবণ ১৪২৮
good-food
১৪০

মাস্ক, সামাজিক দূরত্ববিধিতে কমছে শিশুদের রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা

লাইফ টিভি 24

প্রকাশিত: ২২:৫৭ ১৯ জুন ২০২১  

করোনা আবহে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে শিশুরাই। ঘরবন্দি থাকায় শুধু অবসাদগ্রস্ত হয়ে পড়ছে, তাই-ই নয়। দিনের পর দিন ঘরবন্দি হয়ে, প্রিয়জনের থেকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে, মাস্ক পরে থাকতে থাকতেই দুর্বল হয়ে পড়ছে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা। 


এভাবে আরও বেশ কিছু দিন চললেই, করোনা আবহ কেটে যাওয়ার পর নতুন অতিমারি শুরু হতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন বিশেষজ্ঞরা। শিশুদের শরীরে মাস্ক, সামাজিক দূরত্ব কতটা প্রভাব ফেলছে। এই বিষয় নিয়ে গবেষণা করেই ব্রিটেনের রয়্যাল কলেজ অব জেনারেল প্র্যাকটিশনার্স একটি আশঙ্কাজনক তথ্য প্রকাশ করেছে। 


তাতে বলা হচ্ছে, ৩ থেকে ৬ বছর বয়সিরা নানা ধরনের রোগের শিকার হয়। ব্যাকটেরিয়া, ভাইরাস, ছত্রাক থেকেই রোগ ছড়িয়ে পড়ে। বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই দেখা যায়, বাড়িতে যাঁদের সঙ্গে সময় কাটাচ্ছে বেশি, তাঁদের থেকেই রোগ ছড়ায় শিশুদের শরীরে। এতে ক্ষতির চেয়েও বেশি উপকার হয় তাদের। 


কীভাবে? বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন, এই ভাইরাস, ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণ রুখতে শরীরের প্রতিরোধ ব্যবস্থার ক্ষমতা বাড়ে। শরীরের শত্রুদের চিনে নেওয়ায় ভবিষ্যতে রোগের বিরুদ্ধে লড়তে সাহায্য করে। কিন্তু গত দেড় বছর ধরে মাস্কের কারণে মুখ ঢেকে রাখায় এবং প্রিয়জনদের সঙ্গে দূরত্ব রেখে চলতে শেখায়, রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা ক্রমশ দুর্বল হয়ে পড়ছে। 


কারণ, এই ভাইরাস, ব্যাকটেরিয়া চেনার অভিজ্ঞতার সম্মুখীন হচ্ছে না বলেই, দক্ষতাও তৈরি হচ্ছে না শরীরের। জনস্বাস্থ্য দফতরের বিশেষজ্ঞদের মতে, আগামী দিনে ইনফ্লুয়েঞ্জাসহ আরও নানা রোগের শিকার হতে পারে শিশুরা। 


ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়ার অভিজ্ঞতা তৈরি হচ্ছে না বলেই, হয়তো পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলেও ভাইরাস, ব্যাকটেরিয়ার মূল লক্ষ্য হয়ে উঠবে শিশু শরীরই। যা আরও ভয়াবহ পরিস্থিতির সৃষ্টি করতে পারে।
 

শিশু বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর