ঢাকা, ২১ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার, ২০২১ || ৬ আশ্বিন ১৪২৮
good-food
১১৬

কোন খাবারে কি পরিমাণ আয়োডিন আছে?

লাইফ টিভি 24

প্রকাশিত: ২২:৩৮ ২৯ আগস্ট ২০২১  

আয়োডিন হলো একটি খনিজ উপাদান, যা শরীরের জন্য অল্প পরিমাণে প্রয়োজন। কিন্তু সেই অল্প পরিমাণ পাওয়া শরীরের জন্য অত্যন্ত জরুরি। আয়োডিন থাইরয়েড ভালো রাখে, স্নায়বিক কাজ, প্রজনন স্বাস্থ্য, মস্তিষ্ক ও ভ্রূণের বিকাশে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। আয়োডিনের ঘাটতিতে সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ মানুষ হলো গর্ভবতী নারী ও নিরামিষাশীরা।

 

আয়োডিনের অভাবে যা ঘটতে পারে
আয়োডিনের অভাবে ওজন বাড়া, ক্লান্তি, চুল পড়া, ত্বক ফাটা ও শুষ্ক, সংক্রমণের প্রতি সংবেদনশীলতা, বিষন্নতা, কোষ্ঠকাঠিন্য, শিশুমৃত্যুর হার বৃদ্ধি হতে পারে।
আমেরিকান থাইরয়েড অ্যাসোসিয়েশনের মতে, যাঁরা গর্ভবতী হওয়ার পরিকল্পনা করছেন, গর্ভবতী এবং শিশুকে বুকের দুধ খাওয়াচ্ছেন, তাঁদের আয়োডিনের চাহিদা পূরণ করা অত্যন্ত জরুরি।

 

মায়েরা এ সময় প্রতিদিন পর্যাপ্ত পরিমাণে আয়োডিন গ্রহণে ব্যর্থ হলে গর্ভের শিশুদের হতে পারে ক্রিটিজম নামক রোগ, থাইরয়েড ও স্নায়ু প্রতিবন্ধকতার মতো গুরুতর পরিণতি। দীর্ঘমেয়াদি আয়োডিনের ঘাটতিতে প্রাপ্তবয়স্কদের মধ্যে হতে পারে হালকা থেকে মাঝারি আকারের গলগণ্ড, হাইপোথাইরয়েডিজম অথবা হাইপারথাইরয়েডিজম। 

আয়োডিনের ঘাটতিজনিত প্রতিরোধের ভালো উপায় হলো আয়োডিনসমৃদ্ধ খাবার গ্রহণ করা। খাবারের উপাদান হিসেবে আয়োডিন বিশেষভাবে পাওয়া যায় সমুদ্রের পানি, পাথর এবং বিশেষ ধরনের মাটিতে। এ ছাড়া অন্য কিছু খাবারের মধ্যে আয়োডিন পাওয়া যায়। যদি মাটি বা পানিতে আয়োডিন থাকে, তার ওপর নির্ভর করে আয়োডিনের পরিমাণ।