ঢাকা, ২২ জানুয়ারি শুক্রবার, ২০২১ || ৯ মাঘ ১৪২৭
good-food
৪৫

শীতে খুশকির সমস্যায় ঘরোয়া সমাধান

লাইফ টিভি 24

প্রকাশিত: ২২:৪৬ ১২ জানুয়ারি ২০২১  

এক নিমেষে প্রেসটিজ পাংচার! স্টাইল করে কালো জামা পরলেন, অথচ ঘাড় থেকে পিঠ... সাদায় সাদা! থাবা মেরেছে খুশকি! এ সমস্যায় কমবেশি সবাই ভোগেন! বিশেষ করে শীতকালে! কারণ শীতে বাতাসের আর্দ্রতা কম থাকে। ফলে জাঁকিয়ে বসে খুশকি! পাশাপাশি মাথার স্ক্যাল্পে ফাংগাল ইনফেকশন, অপরিষ্কার স্ক্যাল্প, শ্যাম্পু লাগিয়ে ভালো করে না ধোয়া, তৈলাক্ত স্ক্যাল্পে ধুলোবালি জমে যাওয়ার কারনেও তা হয়। 


খুশকি দু ধরনের-শুষ্ক ও তৈলাক্ত! বিভিন্ন রাসায়নিক প্রোডাক্ট ব্যবহার করেছেন। এতে সমস্যা ঠিক হলেও চুল রুক্ষ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থেকে যায়। তাই সমস্যায় অবশ্য়ই ভরসা রাখতে পারেন কেশরে। কেশর বা জাফরান দিলে যেন খাবারের স্বাদই বদলে যায়। আসে এক রাজকীয় স্বাদ ও গন্ধ! কিন্তু শুধু রান্নাতেই কি বাজিমাত করে জাফরান? আসলে কেশরের অন্যান্য গুণ শুনলে অবাক হবেন আপনিও। চুলের একাধিক সমস্যা সমাধানে একেবারে একাই একশোএটি ! আপনি ভাবতে পারেন?

 

যেভাবে ব্যবহার করবেন
এক চিমটে জাফরান নেবেন। তা গুঁড়ো করবেন। সেটার সঙ্গে মিশিয়ে নেবেন এক গ্রাম গোলমরিচ গুঁড়া। ৫০ মিলি কোল্ড প্রেসড তিল তেল নিন। সঙ্গে মিশিয়ে নিন গোলমরিচ ও জাফরান। হালকা গরম করে নিয়ে স্ক্যাল্পে ভালোভাবে মাসাজ করবেন। চুলেও এ তেল লাগাবেন। কয়েকদিন নিয়মিত ব্যবহার করলেই খুশকির সমস্যা সমাধান হবে।

 

ড্যামেজ চুল রিপেয়ার করে
বিভিন্ন হেয়ার প্রোডাক্ট, তাপ, রোদ ও দূষণের কারণে চুল ক্ষতিগ্রস্ত হয়। চুলের রঙ ও জেল্লা হারিয়ে যায়। কেশর চুল রিপেয়ার করে। আর ফিরিয়ে দেয় হারিয়ে যাওয়া জেল্লা। এক চা চামচ কেশর নিন। তা গুঁড়া করে নেবেন। সেই সঙ্গে মিশিয়ে নিন আমন্ড অয়েল বা অলিভ অয়েল। অল্প আঁচে এ মিশ্রণ পাঁচ মিনিট গরম করুন। এরপর ঘরের তাপমাত্রায় সেই মিশ্রণ ঠাণ্ডা করে নেবেন। একটি শিশিতে এ মিশ্রণ ঢেলে রেখে দিন। এরপর অল্প অল্প করে তেলে জাফরানের গুণ মিশতে শুরু করবে। প্রতিদিন অল্প তেল নিয়ে ভালো করে স্ক্যাল্পে মাসাজ করবেন। চুলে পরিবর্তন আপনারই চোখে পড়বে। অবশ্য়ই প্রতিবার ব্যবহারের সময় বোতল ঝাঁকিয়ে নেবেন।