ঢাকা, ২৪ নভেম্বর মঙ্গলবার, ২০২০ || ১০ অগ্রাহায়ণ ১৪২৭
good-food
৫৪

দোকান কর্মচারী থেকে হাজার কোটি টাকার মালিক

লাইফ টিভি 24

প্রকাশিত: ১৭:১০ ২১ নভেম্বর ২০২০  

রাজধানীর গাউছিয়া মার্কেটে একটি কাপড়ের দোকানে সেলসম্যান হিসেবে কাজ করতেন মনির হোসেন। তারপর শুরু করেন কোকারিজের ব্যবসা। এক পর্যায়ে স্বর্ণ চোরাচালানির সঙ্গে জড়িয়ে পড়েন। বিদেশ থেকে অবৈধভাবে বিপুল স্বর্ণ দেশে আনেন। এরপর আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি তাকে।

 

গ্রেপ্তারের পর মনিরের বিভিন্ন ‘অপকর্মের’ তথ্য পায় র‌্যাব। শুক্রবার রাতে রাজধানীর মেরুল বাড্ডায় অভিযানে তার বাসা থেকে একটি বিদেশি পিস্তল, কয়েকটি গুলি, বিদেশি মদ এবং প্রায় ১০টি দেশের বৈদেশিক মুদ্রা উদ্ধার করা হয়, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ১০ লাখ টাকা। এছাড়া ৬০০ ভরি স্বর্ণালঙ্কার (আট কেজি), নগদ এক কোটি নয় লাখ টাকা জব্দ করা হয়েছে।
 

র‌্যাব বলছে, গোল্ডেন মনির মূলত একজন হুন্ডি ব্যবসায়ী। তিনি স্বর্ণ চোরাকারবারি এবং ভূমির দালালির সঙ্গেও জড়িত। তার ‘অটো কার সিলেকশন’ নামে গাড়ির একটি শো-রুম রয়েছে। পাশাপাশি গাউছিয়াতে একটি স্বর্ণের দোকানও আছে।

 

র‌্যাব মুখপাত্র লে. কর্নেল আশিক বিল্লাহ বলেন, মূল যে অভিযুক্ত মনির হোসেন ওরফে গোল্ডেন মনির একজন হুন্ডি ব্যবসায়ী। সেই সঙ্গে স্বর্ণ চোরাকারবারি এবং ভূমির দালাল। আমরা তার বাসা থেকে দুটি বিলাসবহুল অনুমোদনবিহীন বিদেশি গাড়ি জব্দ করেছি। এক একটি গাড়ির দাম প্রায় তিন কোটি টাকা। একইভাবে কার সিলেকশন শোরুম থেকেও তিনটি বিলাসবহুল অনুমোদনহীন গাড়ি জব্দ করেছি।

অপরাধ বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর