ঢাকা, ১৩ জুলাই সোমবার, ২০২০ || ২৯ আষাঢ় ১৪২৭
good-food
৭০

আম্ফানের ক্ষত না শুকাতেই ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘নিসর্গ’

লাইফ টিভি 24

প্রকাশিত: ১৫:২৩ ১ জুন ২০২০  

আম্ফানের ক্ষত না শুকাতেই এবার ভারতের দিকে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘নিসর্গ’।

 

মুম্বাই থেকে ৬৯০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে ও সুরাট থেকে ৯২০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে গভীর নিম্নচাপ হিসেবে অবস্থান করছে ঘূর্ণিঝড়টি। ধীরে ধীরে শক্তি বৃদ্ধি করে সাইক্লোনের রূপ নেবে এই নিম্নচাপ।

 

ভারতের আবহাওয়া দফতরের বরাতে এ খবর জানিয়েছে জিনিউজসহ কয়েকটি সংবাদমাধ্যম। 

 

খবরে বলা হয়, গভীর নিম্নচাপ থেকে ঘূর্ণিঝড়ের রূপ নিয়ে বুধবার স্থলভাগে আছড়ে পড়বে নিসর্গ। যার প্রভাব থাকবে বৃহস্পতিবারেও। ঘূর্ণিঝড়ের জেরে প্রবল বেগে ঝড়ো হাওয়া ও ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।

 

আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, শুরুতে আরব সাগর হয়ে উত্তর দিকে বয়ে যাবে নিসর্গ। তারপর উত্তর পূর্বে বাক নিতে নিতে উত্তর মহারাষ্ট্র ও দক্ষিণ গুজরাটের সমুদ্র উপকূলের মাঝখানে হরিহরেশ্বরে আছড়ে পড়বে এই ঘূর্ণিঝড়। ক্ষতিগ্রস্ত হবে গোয়া ও কেরালা, দমন ও লাক্ষাদ্বীপও।

 

বুধবার সন্ধ্যায় যখন সমুদ্র উপকূল গ্রাস করবে নিসর্গ, তখন হাওয়ার গতিবেগ থাকবে সর্বোচ্চ ১১৫ থেকে ১২৫ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টায়। যার দরুন প্রবল বৃষ্টিপাত হবে গোয়া, মহারাষ্ট্র, গুজরাট ও কেরালায়।

 

বঙ্গোপসাগরে উপকূলীয় অঞ্চলের ৬৪ তম ঘূর্ণিঝড় ছিল আম্ফান। বিশ্ব আবহাওয়া সংস্থা (ডব্লিউএমও) জানিয়েছে, আসন্ন মহাপ্রলয়ের নাম ‘নিসর্গ’। এবারের ঘূণিঝড় নিসর্গ নামটি বাংলাদেশের প্রস্তাবিত। 

 

ভারত, বাংলাদেশ, মায়ানমার, পাকিস্তান, মালদ্বীপ, ওমান, শ্রীলঙ্কা এবং থাইল্যান্ডের সঙ্গে ২০১৮ সালে তালিকায় আরও পাঁচটি দেশকে যুক্ত করা হয়েছে। ইরান, কাতার, সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত আর ইয়েমেন। এই ১৩টি দেশ এপ্রিলে আসন্ন ঘূর্ণিঝড়ের ১৬৯টি নাম প্রস্তাব করেছে।

 

আম্ফান পরবর্তী ঘূর্ণিঝড়গুলির নাম হবে - নিসর্গ (বাংলাদেশের প্রস্তাবিত), গতি (ভারতের প্রস্তাবিত), নিভার (ইরানের প্রস্তাবিত), বুরেভি (মালদ্বীপের প্রস্তাবিত), তৌকতাই (মায়ানমারের প্রস্তাবিত নাম), ইয়াস (ওমানের প্রস্তাবিত)।

 

এর আগে ‘ফণী’ ঝড়ের নাম দিয়েছিল বাংলাদেশ। সেটিও প্রবল শক্তি নিয়ে আছড়ে পড়েছিল। আম্ফান নামটি দিয়েছিল থাইল্যান্ড। যার অর্থ আকাশ। 

 

গেল ২০ মে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ এবং বাংলাদেশে কিছু অঞ্চলজুড়ে আঘাত হানে সুপার সাইক্লোন আম্ফান। এতে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতিসহ শতাধিক মানুষ প্রাণ হারান।