ঢাকা, ১৯ জুন বুধবার, ২০২৪ || ৫ আষাঢ় ১৪৩১
good-food
৩২

শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে পাকিস্তানকে হারিয়ে সুপার এইটের পথে ভারত

লাইফ টিভি 24

প্রকাশিত: ০৩:২৩ ১০ জুন ২০২৪  

চলতি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে দাপুটে জয় তুলে নিয়েছিলো ভারত। রবিবার (৯ জুন) পাকিস্তানের বিপক্ষে শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে ৬ রানের জয় তুলে নিয়েছে তারা। এতে সুপার এইটের পথে এগিয়ে গেলো মেন ইন ব্লুরা।

 

নিউইয়র্কের নাসাউ স্টেডিয়ামে বৃষ্টির বাগড়ায় খেলা শুরু হতে বিলম্ব হয়। থামলে হাইভোল্টেজ ম্যাচে টস জিতে ভারতকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় পাকিস্তান। পরে বৃষ্টিতে এক দফা খেলা বন্ধ হয়। এর আগেই সাজঘরে ফেরেন বিরাট কোহলি। তাকে তুলে নেন নাসিম শাহ।

 

এরপর পাক পেসারদের তোপে পড়ে ভারতীয় ব্যাটাররা। শাহিন শাহ আফ্রিদির বলে ফিরে যান অধিনায়ক রোহিত শর্মা। তৃতীয় উইকেটে দলের হাল ধরেন অক্ষর প্যাটেল ও রিশভ প্যান্ট। তাতে প্রাথমিক ধাক্কা সামলে ওঠে তারা। তবে অক্ষর ২০ আর প্যান্ট ৪২ রানে ফিরলে বিপাকে পড়ে ভারত। একদিকে নাসিম, অন্য প্রান্তে মোহাম্মদ আমিরের বোলিংয়ে দিশেহারা হয় তারা। তাদের সমর্থন দেন হারিস রউফ।

 

ফলে শেষ পর্যন্ত ভারত আর ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি। নাসিম-আমির- রউফের আগুন ঝরা বোলিংয়ে ১১৯ রানে অলআউট হয় রোহিত অ্যান্ড কোং। পাকিস্তানের হয়ে নাসিম ও রউফ তিনটি করে এবং আমির দুটি উইকেট শিকার করেন।

 

জবাব দিতে নেমে ধীরে-সুস্থে খেলার চেষ্টা করে পাকিস্তান। তবু ১৩ রান করে জাসপ্রিত বুমরাহর শিকার হয়ে প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন বাবর আজম। ওয়ানডাউনে নেমে দ্রুত ফেরেন উসমান খান। তবে এক প্রান্ত আগলে রাখেন মোহাম্মদ রিজওয়ান। কিন্তু তার ব্যাটিং ছিল মন্থর। একপর্যায়ে ৩১ রান করে বিদায় নেন তিনি। মূলত, সেখানেই ম্যাচ থেকে ছিটকে পড়ে পাকিস্তান। 

 

পরে চেষ্টা করলেও সফল হতে পারেননি ইমাদ ওয়াসিম। ব্যর্থ হন ফখর জামান, শাদাব খান, ইফতিখার আহমেদরা। শেষ পর্যন্ত ২০ ওভার শেষে ৭ উইকেট হারিয়ে ১১৩ রান তুলতে সক্ষম হয় পাকিস্তান। ভারতের হয়ে বুমরাহ ৪ ওভারে মাত্র ১৪ রান খরচায় ৩ উইকেট তুলে নেন তিনি। ম্যাচসেরার পুরস্কারও ওঠে তার হাতে।

খেলাধুলা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর