ঢাকা, ২০ নভেম্বর বুধবার, ২০১৯ || ৫ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬
LifeTv24 :: লাইফ টিভি 24
১১০

ভাল না লাগলে চলে যান

শিক্ষক, এমপি-মেম্বররাও এলাকায় থাকেন না

প্রকাশিত: ২৩:৫২ ১৩ অক্টোবর ২০১৯  


হাওরের চলমান উন্নয়ন ধরে রাখতে হলে এবং প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে হলে টেকসই আধুনিক শিক্ষা ব্যবস্থার বিকল্প নেই। বললেন, রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

রোববার বিকেলে কিশোরগঞ্জের ইটনা উপজেলায় রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ সরকারি কলেজ মাঠে নাগরিক কমিটি আয়োজিত সুধী সমাবেশে এ কথা বলেন রাষ্ট্রপতি।

প্রাতিষ্ঠানিক ও যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নের পাশপাশি শিক্ষায় হাওরাঞ্চল অনেক এগিয়ে গেছে উল্লেখ করে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে আবদুল হামিদ বলেন, শুধু ভালো রেজাল্ট করলেই চলবে না, শিক্ষার গুণগত মান উন্নয়ন না হলে প্রতিযোগিতায় টিকে থাকা যাবে না। নিজেকে এমনভাবে গড়ে তুলতে হবে যাতে বিসিএসের মতো প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষায় টেকা যায়। এজন্য শিক্ষকদের আরও বেশি দায়িত্বশীল হতে হবে।

হাওরের তিন উপজেলায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ব্যাপক উন্নতি হয়েছে উল্লেখ করে রাষ্ট্রপতি বলেন, এতো সুযোগ-সুবিধা দেয়ার পরও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ঠিকমতো লেখাপড়া হচ্ছে না বলে আমার কাছে অভিযোগ আসে। অনেক প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষরা এলাকায় না থেকে জেলা শহরে বাস করেন। তাদের উদ্দেশে বলছি, এখন থেকে অবশ্যই এলাকায় থেকে শিক্ষাদান করতে হবে। যদি ভালো না লাগে তাহলে চলে যান।

সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কর্মস্থলে থেকে দায়িত্ব পালনের নির্দেশ দিয়ে রাষ্ট্রপতি বলেন, আগে হাওর এলাকায় কোনো সুযোগ-সুবিধা ছিল না। এখন সুযোগ-সুবিধা বেড়েছে, অনেক উন্নয়ন হয়েছে। কাজেই হাওরবাসীকে এলাকায় থেকে সেবা দিতে হবে। দায়িত্বে অবহেলা কোনাভাবেই মেনে নেয়া হবে না।

জনপ্রতিনিধিদের এলাকায় না থাকার সমালোচনা করে তিনি বলেন, এমপি থেকে শুরু করে ইউনিয়ন পরিষদের মেম্বাররাও এখন এলাকায় থাকেন না, তারা জেলা শহর কিংবা রাজধানীতে থাকেন। এলাকার মানুষ প্রয়োজনে জনপ্রতিনধিদের পাশে পায় না। এভাবে চলতে পারে না। যারা এলাকায় থাকতে পারেন না, তাদের জনপ্রতিনিধি হওয়া উচিত নয়।

হাওর এলাকা নিয়ে নিজের স্বপ্ন ও পরিকল্পনার বর্ণনা দিয়ে রাষ্ট্রপতি বলেন, হাওরকে আমি অনেক দূর নিয়ে যেতে চাই। এখানে সবগুলো উপজেলায় রেসিডেনসিয়াল স্কুল, ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট, মাছ গবেষণা ইনস্টিটিউট ও ফ্লাইওভার করে যোগাযোগ ব্যবস্থার আরও উন্নয়ন ও কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে চাই। এজন্য সহযোগিতা প্রয়োজন। হাওর যেন দেশের উন্নয়নে জোরালো ভূমিকা রাখাতে পারে সেই হাওরের স্বপ্ন দেখি আমি।

আবদুল হামিদ বলেন, এক সময়ের অবহেলিত হাওর আজ উন্নয়ন ও অগ্রগতিতে দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলছে। আমি দিনরাত হাওরের জন্য কাজ করছি। কিন্তু এই উন্নয়নকে টেকসই করতে হলে যোগ্য লোক দরকার। শিক্ষা ছাড়া যোগ্য ও মেধাবী প্রজন্ম সম্ভব নয়। আমি অনেক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান করেছি। কিন্তু মানসম্পন্ন শিক্ষা পাওয়া যাচ্ছে না। সেদিকে সবাইকে নজর দিতে হবে। হাওরের পরিবেশ রক্ষা করতে হবে। হাওরকে আমি শহরের মতো সাজাতে চাই।
 


এই বিভাগের আরো খবর